Tinpahar
No Comments 19 Views

একটি আজগুবি গল্প

Ruma Chakraborty
Tagore blogger, researcher, writer

এক যে ছিল মেয়ে

বয়স হয়েছে খানিকটা তবে সেই দিকে নেই হুঁশ।
এক যে ছিল ছেলে
দিব্যি ছিল কাজ, বন্ধু, ছুটির দিনে ঘুম
আর সন্ধ্যেবেলায় মদ নিয়ে।
মাঝে মাঝে ইচ্ছে যখন মারত উঁকি,
ঘুরে আসত কাছে কিম্বা দূরে
অফিসের কোন ক্ষনিকবান্ধবীর সাথে।

দেখা আরেক বন্ধুর বাড়িতে।
সন্ধ্যার আলোয় বারান্দা থেকে
২০ তলা দূরের সাইলেন্সার পরানো রাস্তা দেখতে গিয়ে
ঘরের মধ্যে তখন সবে ভডকা আর ওল্ড মাঙ্ক মুখ খুলেছে
ঘরণী শিফন আর সরু চুড়ির রিনরিন তুলে
কাজের লোকের রান্না নিজের বলে চালাচ্ছেন।
এমন সময় সেখানে এল সেই মেয়ে, তাঁতের শাড়ি, নুন-মরিচ ছড়ান চুল
এসেই ব্যাগ রাখলে, খুললে চটি, চারদিক দেখে বললে, ‘ডাবের জল!’
ছেলেটি শুনেই মজা দেখবে ভেবে ঘরের দিকে মুখ ফেরাল
রক্ত হিম হল, ভডকার বরফেই মনে হয়।
কর্তা বোধ হয় জানতেন এই অর্ডারটির কথা, এক হাতে ডাব নিয়ে সে তৈরি!
এমন সময় নতুন এক দল এসে পড়ল, কর্তা তাদের আপ্যায়নে এগোচ্ছে, সাথে হাতের ডাব!
ছেলেটি বললে, ‘আমি দিচ্ছি, গ্লাস কই?’ বলে রান্নাঘরের দিকে পা বাড়াল।
মেয়েটি লক্ষ্য করল হাড়িকাঠের মতন চোয়াল, মাথায় রাখাল ছেলের এলোমেলো চুল,
দোহারা মানুষটা যেন অনেক দিনের চেনা।
ছেলেটি দেখল এক জোড়া পা পাশে এসে দাড়াল, নিরাভরণ দুটি হাত, ঢাউস ঘড়ি।
ডাবের জলে পড়ল প্রথম দেখার ইলশেগুঁড়ি ধারা
কথা হল বা হল না কে জানে। আর তারপর?
সেইদিন আর কারা এসেছিল, এ কথা তাদের জিজ্ঞেস করলেও
কোনদিন সঠিক উত্তর মেলেনি কারোর কাছ থেকেই, শুধু
ও যে পরেছিল ফিরোজা আর কালো শান্তিপুরী, কানে গলায় কালো মুক্তো!
এটা কি ভাবে কারোর মনে থাকে মেয়েটি আজও বলতে পারেনা।

About the author:
Has 212 Articles

LEAVE YOUR COMMENT

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to Top